ঘরোয়া উপায়ে দূর করুন উকুন

আমাদের মাথার  উকুন এমন একটি সমস্যা যে কাউকেই লজ্জায় বলা যায় না এবং এই সমস্যাটি আমাদের অনেক সময় লজ্জায় ফেলেদিতে পারে। আমরা দেখেছি আগের কার দিনে মা নানি দাদিরাও মাথা নিয়ে বসে উকুন বাচতো ছোটবেলায় আমার সাথে এমন হয়েছে আশা করি ছোট বেলায় আপনার সাথে অমনি ঘটেছে মাথায় উকুন এটা শুনতে কেমন লাগে তাই না। মাথায় উকুন যে কোন বয়সেই হতে পারে বিশেষ করে ছোট বাচ্চাদের যারা স্কুলে পড়ে এবং ছেলে বা মেয়ে উভয়ই এই সমস্যা হতে পারে এই সমস্যা যাদের আছে তাদের জন্য আজকে কিছু ঘরোয়া প্রতিকার আপনাদের সঙ্গে শেয়ার করব ।

 

 

আপনাদের যানাবো একদম সহজ উপায়ে মাথার উকুন আপনি কিভাবে বের করবেন তার আগে আমরা জেনে নেব মাথায় উকুন কেন হয়। কারন যেনে নেওয়ার পর আপনি  হয়তো এই ভুল আর করবেন না। উকুন তাদের বেশি হয় যাদের মাথায় ঘাম বেশি দেয় এবং ঘাম বেশি দেয়ার করনে ধূল বালি চুলের গোড়ায় দীর্ঘদিন জমে থাকে এবং আমাদের মাথার চুল ভালোভাবে পরিস্কার না করলে তখন আমাদের মাথায় উকুন জন্মায়। আর একটা একটা করে আমাদের সারা মাথায় ছরিয়ে পরে। এরা আমাদের রক্ত চুষে বেঁচে থাকি। 

 

 সবার প্রথমে আপনি একটি খালি পাত্র নিন এখানে ৬ থেকে ৭ চামচ নারকেল তেল দিন। নারকেল তেল না থাকলে আপনি এখানে সরষের তেল নিতে পারেন খুবই ভালো কাজ দেবে তারপর এই তেলটা হালকা আঁচে গরম করবেন যখন দেখবেন তেলটি হালকা গরম হয়ে এসেছে তখন এতে আপনি ৯ থেকে ১০ টা তাজা নিমের পাতা গরম তেলে দিয়ে দিবেন আর খেয়াল রাখবেন যেন পুড়ে না যায় যখন দেখবেন পাতা সেদ্ধ হয়ে এসেছে তখন গ্যাস বন্ধ করে ঠান্ডা করার জন্য ১০ থেকে ১৫ মিনিট ঢেকে রেখে দিন যেটা নিম পাতার গুনাগুন গুলি তেলের মধ্যে চলে আসবে। এরপর এই তেল টা ভালো করে ছেকে নিন। এটি আপনি বেশি পরিমাণে বানিয়ে রাখতে পারেন কোন সমস্যা নেই। 

 

 

আসুন এবার জেনে নিন আপনি তেলের ব্যবহার কিভাবে করবেন তেলের ব্যবহার করার জন্য সবার প্রথমে আপনি আপনার চুল শ্যাম্পু দিয়ে পরিষ্কার করে নিন। তার পর এই তেল চুলের গোড়ায় ভালো করে লাগিয়ে হালকা ম্যাসাজ করবেন । তারপর একটা কাপড় চুলে বেঁধে রেখে দেবেন যার ফলে ৮০ থেকে ৯০ পার্সেন্ট উকুন মরে যাবে এরকম আপনি এক থেকে দেড় ঘন্টা মাথায় কাপর বেঁধে রাখবেন। তারপর ঘন চিরুনি দিয়ে চুল আচরে নিন পরের দিন চুল শ্যাম্পু করেননি। যদি মাথায় বেশি উকুন থেকে তবে সপ্তাহে ২ থেকে ৩ বার এর ব্যবহার করতেন পারেন এই ভাবেই খুব সহজেই আপনার মাথার উকুন থেকে মুক্তি পাবেন।