অনলাইনে ইনকাম হালাল? is make money online haram?

অনলাইনে ইনকাম হালাল? প্রতি ধর্মে এবং নৈতিকতার দিক দিয়ে হালাল এবং হারাম সম্পর্কে বিস্তারিত ধারণা রয়েছে। তাই কোন কাজ শুরু করার পূর্বে সে কাজের হালাল না হারাম বিষয়টি মাথায় আসা স্বাভাবিক। 

Is online income, make money online, earn money online, ways to make money online, halal? Every religion and morality have a detailed idea about halal and haram. Therefore, before starting any work, it is normal to think about the halal or haram of that work. 

অনলাইন ইনকামের এক্ষেত্রে আপনি যদি হালাল বা হারাম এর কথা চিন্তা করে থাকেন তবে বলে রাখি এর উত্তর আপনার নিজের জানা আছে। তবে কিছু ক্ষেত্রে  কনফিউশন দেখা যায় সেগুলো সহ অনলাইন ইনকাম হালাল না হারাম সে বিষয়ে বিস্তারিত আজ জানব।

 

অনলাইন ইনকামের বিভিন্ন ক্ষেত্র রয়েছে। এবং হালাল এবং হারাম বিষয়টি বিবেচনা করতে গেলে সেই ক্ষেত্র ধরেই প্রতিটি বিষয়কে বিবেচনা করতে হবে। যেমন আপনি আপনি এমন অনেক সাইট দেখবেন যেগুলো ১৮+ কনটেন্ট গুলোকে প্রমোট করার কাজ করে থাকে। আপনার সাধারন বিবেচনা থেকে আপনি নিজেই বলতে পারবেন এসব সাইট অবশ্যই অবৈধ এবং এগুলো থেকে ইনকাম করাও বৈধতার ভিতরে পরে না অর্থাৎ হারাম। অনলাইনে ইনকাম হালাল?

 এখন আসা যাক অনলাইনে অধিকাংশ ক্ষেত্রে যেসব কাজ হয়ে থাকেন বা আমরা পরবর্তী সময়ে যেসব কাজ নিয়ে আলোচনা করেছি সেগুলো কি হালাল না হারাম সে বিষয়ে জানি।

 

আরও পড়ুনঃ কয়েকটি হাইপেইড অনলাইন ইনকাম সাইট যা আগে দেখেননি

 

>ফ্রিল্যান্সিং থেকে ইনকাম

 

আমরা গ্রাফিক্স ডিজাইন, ওয়েব ডেভেলপমেন্ট, ডিজিটাল মার্কেটিং এর বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে জেনেছি।  এসব কাজগুলো সামগ্রিকভাবে একজন ক্লায়েন্টের যে সকল কাজ হাতে করে দেওয়া যায় সেগুলো একজন ফ্রিল্যান্সার করে থাকে। এক্ষেত্রে অবশ্যই আমরা কোন অন্যায় বা প্রতারণামূলক কাজ না করে সুষ্ঠুভাবে কাজের বিনিময়ে পারিশ্রমিক নিয়ে থাকি তাহলে অবশ্যই এখানে হারামের বিষয়টি আসবেনা। 

READ MORE:  গুগল এডসেন্স ইনকাম যেভাবে ৫ গুন বাড়িয়ে নিবেন | 5x Increase google adsense income

 

 

 >এডভেটাইজ (Ads) থেকে ইনকাম

 এক্ষেত্রে অ্যাপস গুলো সাধারণত বিভিন্ন ওয়েবসাইটে ইউটিউব চ্যানেলে প্রচার করা হয়ে থাকে। সে ক্ষেত্রে ওয়েবসাইটের জন্য বিভিন্ন রকম  এড নেটওয়ার্ক রয়েছে যেগুলো তাদের অ্যাডস সরবরাহ করে থাকে। কিছু কিছু  এড নেটওয়ার্ক প্রতিষ্ঠান যেমন অ্যাডসেন্স সহ আরো কিছু প্রতিষ্ঠান ১৮+  কন্টেন্ট কখনই সরবরাহ করে না।  এগুলো তাদের টার্মস এন্ড কন্ডিশন এর বাইরে থাকে। তাই যেসব  ওয়েবসাইট  গুলো ১৮+ কন্টেন্ট লিখে থাকে এসব  এড নেটওয়ার্ক প্রতিষ্ঠান গুলো কোন ভাবেই তাদের সাইটে এড গুলো প্রকাশ করে না।

 

তাই  সর্বোপরি, এ কথা বলা যায় যে, হালাল বা হারাম প্রতিটি বিষয়ে আপনার কাজের ধরনের ওপর নির্ভর করবে। আপনি যদি সচেতনভাবে  বিষয়গুলো অনুধাবন  করে থাকেন  তাহলে প্রতিটি বিষয়ের ক্ষেত্রে আপনার বুঝতে জটিলতা হবে না আশা করা যায়।